আজঃ ১লা অগ্রহায়ণ ১৪২৫ - ১৫ই নভেম্বর ২০১৮ - রাত ৪:৪৮

এশিয়া কাপে ছয় দলের ছয় তারকা

Published: সেপ্টে ১৪, ২০১৮ - ৫:৫৫ অপরাহ্ণ

ক্রীড়া ডেস্ক :: এশিয়ার মধ্যে ক্রিকেটীয় আয়োজনের সবচেয়ে বড় আসর এশিয়া কাপ। এই আয়োজনের ১৪তম আসর শুরু হচ্ছে শনিবার (১৫ সেপ্টেম্বর)।

২০১৯ সালে ওয়ানডে বিশ্বকাপকে সামনে রেখে এবারের এশিয়া কাপ আয়োজন করা হচ্ছে ওয়ানডে ফরম্যাটে। এবারের আসরে অংশ নিচ্ছে ছয়টি দল। গ্রুপ ‘এ’ তে থাকছে ভারত, পাকিস্তান ও হংকং। অন্যদিকে, গ্রুপ ‘বি’ তে থাকছে বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কা ও আফগানিস্তান। দেখে নেয়া যাক এবারের আসরে ছয় দলের যে ছয় তারকার দিকে নজর বেশি থাকছে সমর্থকদের।

তামিম ইকবাল – বাংলাদেশ

বাংলাদেশ দলের সেরা ব্যাটসম্যানদের তালিকায় অন্যতম ওপেনার তামিম ইকবাল। লম্বা সময় ধরে ওপেনিংয়ে খেলা বাঁহাতি এই তারকা ব্যাটসম্যানের দিকেই নজরটা বেশি থাকবে সমর্থকদের। সব ধরনের ক্রিকেটে দেশের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান তামিম। আরব আমিরাতে খেলার অভিজ্ঞতাও আছে তার। পাকিস্তান সুপার লিগে খেলেই আরব আমিরাতের উইকেট সম্পর্কে অভিজ্ঞতা নিয়েছেন তামিমের। সম্প্রতি তার ফর্ম ও দুবাইয়ের উইকেট অভিজ্ঞতা বেশ ভালভাবেই কাজে লাগাতে পারেন এই ব্যাটসম্যান। তামিম ছাড়াও সবাংলাদেশ দলে অভিজ্ঞ মাশরাফি, সাকিব, মুশফিক ও মাহমুদউল্লাহ আছেন সেরাদের তালিকায়।

রশিদ খান – আফগানিস্তান

আফগান দলের সেরা বোলিং অস্ত্র বলা হয় তাকে। বল হাতে একের পর এক চমক দেখিয়ে চলা ১৯ বছর বয়সী এই স্পিনারের কাছে বেশ ভুগতে হয় বিপক্ষ দলের ব্যাটসম্যানদের। আফগান দলের উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ শেহজাদ ও অলরাউন্ডার মোহাম্মদ নবীর মতো তরুণ এই স্পিনারের দিকেই নজর বেশি থাকবে আফগানদের।

মহেন্দ্র সিং ধোনি – ভারত

এই মুহুর্তে ভারতীয় দলের সবচেয়ে দক্ষ ক্রিকেটারের কথা উঠলে হয়তো মহেন্দ্র সিং ধোনির নামটাই সবার আগে আসবে। ২০১০ ও ২০১৬ সালে ভারতের এশিয়া কাপ জয়ী দলের অধিনায়ক ছিলেন এই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান। ভারতের সাবেক এই অধিনায়কের ব্যাট হাতে উইকেটের সামনে আর গ্লাভস হাতে উইকেটের পেছনে এবারের এশিয়া কাপের আসরটি হয়তো শেষ আসর হতে যাচ্ছে। তাই অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটারের দিকে নজরটা হয়তো একটু বেশিই থাকবে সমর্থকদের।

লাসিথ মালিঙ্গা – শ্রীলঙ্কা

শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটের অন্যতম সেরা বোলিং অস্ত্র লাসিথ মালিঙ্গা। এশিয়া কাপের দুই ফরম্যাটের উইকেট যোগ করলে শ্রীলঙ্কান এই পেসার থাকবেন সেরাদের তালিকায় দুই নম্বরে। স্বল্প ওভারের ম্যাচে বিশ্বের অন্যতম সেরা এই পেসারের মতো বোলিং দক্ষতা খুব কম ক্রিকেটারেরই আছে। এশিয়া কাপে এবারই হয়তো শেষবারের মতো খেলবেন মালিঙ্গা। তাই এই আসরে তার কাছ থেকে একটি বেশকিছু আশা করতেই পারে লঙ্কানরা।

হাসান আলী – পাকিস্তান

পাকিস্তান দলের অন্যতম সেরা বোলিং অস্ত্র হাসান আলী। ২০১৬ সালের আগস্টে জাতীয় দলের জার্সিতে অভিষেক হওয়া এই বোলার প্রতিপক্ষ দলের ব্যাটসম্যানদের বেশ ভোগাতে পারেন। জাতীয় দলের জার্সিতে এ নিয়ে টেস্টে ৪ ম্যাচে ১২ উইকেট আছে তার সংগ্রহে। ওয়ানডেতে ৩৩ ম্যাচে ৬৮ উইকেট এবং টি-টোয়েন্টিতে ২২ ম্যাচে ২৭ উইকেট আছে তার ঝুলিতে। এর মধ্যে আরব আমিরাতেই ৮ ম্যাচ খেলে ১৭ উইকেট তুলে নিয়েছেন তিনি।

আইজাজ খান – হংকং

হংকং দলের অন্যতম অস্ত্র বোলিং অলরাউন্ডার আইজাজ খান। ২৫ বছর বয়সী এই অলরাউন্ডারের দিকেই এবার নজর থাকছে হংকং দলের। ২০১৪ সালের মার্চে নেপালের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি ম্যাচে অভিষেক হওয়া এই ক্রিকেটার এ নিয়ে ১৭টি ওয়ানডে এবং ২৩টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছেন তিনি। ওয়ানডেতে সবমিলিয়ে ব্যাট হাতে ২৩৩ রানের পাশাপাশি বল হাতে ১৫টি উইকেট আছে তার ঝুলিতে। এছাড়াও টি-টোয়েন্টিতে ব্যাট হাতে ১৮৬ রানের পাশাপাশি বল হাতে ২৮টি উইকেট সংগ্রহে আছে তার। তরুণ এই বোলার ব্যাট হাতে ভাল পারফর্মের পাশাপাশি বল হাতে বিপক্ষ দলের ব্যাটসম্যানদের বেশ ভোগাতে পারেন বেশ ভালভাবেই।

Facebook Comments

ক্রীড়া ডেস্ক :: এশিয়ার মধ্যে ক্রিকেটীয় আয়োজনের সবচেয়ে বড় আসর এশিয়া কাপ। এই আয়োজনের ১৪তম আসর শুরু হচ্ছে শনিবার (১৫ সেপ্টেম্বর)।

২০১৯ সালে ওয়ানডে বিশ্বকাপকে সামনে রেখে এবারের এশিয়া কাপ আয়োজন করা হচ্ছে ওয়ানডে ফরম্যাটে। এবারের আসরে অংশ নিচ্ছে ছয়টি দল। গ্রুপ ‘এ’ তে থাকছে ভারত, পাকিস্তান ও হংকং। অন্যদিকে, গ্রুপ ‘বি’ তে থাকছে বাংলাদেশ, শ্রীলঙ্কা ও আফগানিস্তান। দেখে নেয়া যাক এবারের আসরে ছয় দলের যে ছয় তারকার দিকে নজর বেশি থাকছে সমর্থকদের।

তামিম ইকবাল – বাংলাদেশ

বাংলাদেশ দলের সেরা ব্যাটসম্যানদের তালিকায় অন্যতম ওপেনার তামিম ইকবাল। লম্বা সময় ধরে ওপেনিংয়ে খেলা বাঁহাতি এই তারকা ব্যাটসম্যানের দিকেই নজরটা বেশি থাকবে সমর্থকদের। সব ধরনের ক্রিকেটে দেশের অন্যতম সেরা ব্যাটসম্যান তামিম। আরব আমিরাতে খেলার অভিজ্ঞতাও আছে তার। পাকিস্তান সুপার লিগে খেলেই আরব আমিরাতের উইকেট সম্পর্কে অভিজ্ঞতা নিয়েছেন তামিমের। সম্প্রতি তার ফর্ম ও দুবাইয়ের উইকেট অভিজ্ঞতা বেশ ভালভাবেই কাজে লাগাতে পারেন এই ব্যাটসম্যান। তামিম ছাড়াও সবাংলাদেশ দলে অভিজ্ঞ মাশরাফি, সাকিব, মুশফিক ও মাহমুদউল্লাহ আছেন সেরাদের তালিকায়।

রশিদ খান – আফগানিস্তান

আফগান দলের সেরা বোলিং অস্ত্র বলা হয় তাকে। বল হাতে একের পর এক চমক দেখিয়ে চলা ১৯ বছর বয়সী এই স্পিনারের কাছে বেশ ভুগতে হয় বিপক্ষ দলের ব্যাটসম্যানদের। আফগান দলের উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান মোহাম্মদ শেহজাদ ও অলরাউন্ডার মোহাম্মদ নবীর মতো তরুণ এই স্পিনারের দিকেই নজর বেশি থাকবে আফগানদের।

মহেন্দ্র সিং ধোনি – ভারত

এই মুহুর্তে ভারতীয় দলের সবচেয়ে দক্ষ ক্রিকেটারের কথা উঠলে হয়তো মহেন্দ্র সিং ধোনির নামটাই সবার আগে আসবে। ২০১০ ও ২০১৬ সালে ভারতের এশিয়া কাপ জয়ী দলের অধিনায়ক ছিলেন এই উইকেটরক্ষক ব্যাটসম্যান। ভারতের সাবেক এই অধিনায়কের ব্যাট হাতে উইকেটের সামনে আর গ্লাভস হাতে উইকেটের পেছনে এবারের এশিয়া কাপের আসরটি হয়তো শেষ আসর হতে যাচ্ছে। তাই অভিজ্ঞ এই ক্রিকেটারের দিকে নজরটা হয়তো একটু বেশিই থাকবে সমর্থকদের।

লাসিথ মালিঙ্গা – শ্রীলঙ্কা

শ্রীলঙ্কা ক্রিকেটের অন্যতম সেরা বোলিং অস্ত্র লাসিথ মালিঙ্গা। এশিয়া কাপের দুই ফরম্যাটের উইকেট যোগ করলে শ্রীলঙ্কান এই পেসার থাকবেন সেরাদের তালিকায় দুই নম্বরে। স্বল্প ওভারের ম্যাচে বিশ্বের অন্যতম সেরা এই পেসারের মতো বোলিং দক্ষতা খুব কম ক্রিকেটারেরই আছে। এশিয়া কাপে এবারই হয়তো শেষবারের মতো খেলবেন মালিঙ্গা। তাই এই আসরে তার কাছ থেকে একটি বেশকিছু আশা করতেই পারে লঙ্কানরা।

হাসান আলী – পাকিস্তান

পাকিস্তান দলের অন্যতম সেরা বোলিং অস্ত্র হাসান আলী। ২০১৬ সালের আগস্টে জাতীয় দলের জার্সিতে অভিষেক হওয়া এই বোলার প্রতিপক্ষ দলের ব্যাটসম্যানদের বেশ ভোগাতে পারেন। জাতীয় দলের জার্সিতে এ নিয়ে টেস্টে ৪ ম্যাচে ১২ উইকেট আছে তার সংগ্রহে। ওয়ানডেতে ৩৩ ম্যাচে ৬৮ উইকেট এবং টি-টোয়েন্টিতে ২২ ম্যাচে ২৭ উইকেট আছে তার ঝুলিতে। এর মধ্যে আরব আমিরাতেই ৮ ম্যাচ খেলে ১৭ উইকেট তুলে নিয়েছেন তিনি।

আইজাজ খান – হংকং

হংকং দলের অন্যতম অস্ত্র বোলিং অলরাউন্ডার আইজাজ খান। ২৫ বছর বয়সী এই অলরাউন্ডারের দিকেই এবার নজর থাকছে হংকং দলের। ২০১৪ সালের মার্চে নেপালের বিপক্ষে টি-টোয়েন্টি ম্যাচে অভিষেক হওয়া এই ক্রিকেটার এ নিয়ে ১৭টি ওয়ানডে এবং ২৩টি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলেছেন তিনি। ওয়ানডেতে সবমিলিয়ে ব্যাট হাতে ২৩৩ রানের পাশাপাশি বল হাতে ১৫টি উইকেট আছে তার ঝুলিতে। এছাড়াও টি-টোয়েন্টিতে ব্যাট হাতে ১৮৬ রানের পাশাপাশি বল হাতে ২৮টি উইকেট সংগ্রহে আছে তার। তরুণ এই বোলার ব্যাট হাতে ভাল পারফর্মের পাশাপাশি বল হাতে বিপক্ষ দলের ব্যাটসম্যানদের বেশ ভোগাতে পারেন বেশ ভালভাবেই।

Facebook Comments

এ জাতীয় আরো খবর