আজঃ ২৭শে অগ্রহায়ণ ১৪২৫ - ১১ই ডিসেম্বর ২০১৮ - রাত ১১:১৩

যুক্তরাষ্ট্রে রাজনৈতিক আশ্রয় পেলেন এস কে সিনহা

Published: অক্টো ১৪, ২০১৮ - ১২:৩৪ পূর্বাহ্ণ

প্রতিদিন ডেস্ক :সাবেক প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা যুক্তরাষ্ট্রে রাজনৈতিক আশ্রয় পেয়েছেন। সে দেশের সরকার তাকে ইচ্ছেমতো যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস এবং কাজের অনুমতিও  দিয়েছে। দায়িত্বশীল কূটনৈতিক সূত্রগুলো সাবেক প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহার রাজনৈতিক আশ্রয় পাওয়া সংক্রান্ত এ তথ্য মানবজমিনকে নিশ্চিত করেছে।

সূত্রমতে, গত সপ্তাহে একটি মার্কিন গবেষণা প্রতিষ্ঠান এস কে সিনহাকে নিয়ে আলোচনার আয়োজন করে। বিস্তৃত এবং একান্ত (ক্লোজ ডোর) ওই আলোচনায় মার্কিন স্টেট ডিপার্টমেন্টের প্রতিনিধি, কংগ্রেস প্রতিনিধি, থিঙ্কট্যাঙ্ক এবং যুক্তরাষ্ট্রের নিরাপত্তায় কাজ করা সরকারি- বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিরা অংশ নেন। এর পরপরই এস কে সিনহার রাজনৈতিক আশ্রয়ের আবেদন গৃহীত হয়। সম্প্রতি এস কে সিনহা তার বইয়ের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে যুক্তরাষ্ট্রে রাজনৈতিক আশ্রয় প্রার্থনার কথা জানান। তবে সূত্র বলছে, এস কে সিনহা এখনো তার ট্রাভেল ডকুমেন্ট হাতে পাননি।

তিনি এর অপেক্ষায় রয়েছেন। বইয়ের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে সিনহা জানিয়েছিলেন, বৃটেনের হাউস অব কমন্সসহ বিভিন্ন দেশে তার আমন্ত্রণ রয়েছে। কিন্তু তিনি যেতে পারছেন না।

Facebook Comments

প্রতিদিন ডেস্ক :সাবেক প্রধান বিচারপতি সুরেন্দ্র কুমার সিনহা যুক্তরাষ্ট্রে রাজনৈতিক আশ্রয় পেয়েছেন। সে দেশের সরকার তাকে ইচ্ছেমতো যুক্তরাষ্ট্রে বসবাস এবং কাজের অনুমতিও  দিয়েছে। দায়িত্বশীল কূটনৈতিক সূত্রগুলো সাবেক প্রধান বিচারপতি এস কে সিনহার রাজনৈতিক আশ্রয় পাওয়া সংক্রান্ত এ তথ্য মানবজমিনকে নিশ্চিত করেছে।

সূত্রমতে, গত সপ্তাহে একটি মার্কিন গবেষণা প্রতিষ্ঠান এস কে সিনহাকে নিয়ে আলোচনার আয়োজন করে। বিস্তৃত এবং একান্ত (ক্লোজ ডোর) ওই আলোচনায় মার্কিন স্টেট ডিপার্টমেন্টের প্রতিনিধি, কংগ্রেস প্রতিনিধি, থিঙ্কট্যাঙ্ক এবং যুক্তরাষ্ট্রের নিরাপত্তায় কাজ করা সরকারি- বেসরকারি প্রতিষ্ঠানের প্রতিনিধিরা অংশ নেন। এর পরপরই এস কে সিনহার রাজনৈতিক আশ্রয়ের আবেদন গৃহীত হয়। সম্প্রতি এস কে সিনহা তার বইয়ের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে যুক্তরাষ্ট্রে রাজনৈতিক আশ্রয় প্রার্থনার কথা জানান। তবে সূত্র বলছে, এস কে সিনহা এখনো তার ট্রাভেল ডকুমেন্ট হাতে পাননি।

তিনি এর অপেক্ষায় রয়েছেন। বইয়ের প্রকাশনা অনুষ্ঠানে সিনহা জানিয়েছিলেন, বৃটেনের হাউস অব কমন্সসহ বিভিন্ন দেশে তার আমন্ত্রণ রয়েছে। কিন্তু তিনি যেতে পারছেন না।

Facebook Comments

এ জাতীয় আরো খবর