বজ্রপাতে নিহত শিশু এনামের পিতার হাতে ২০ হাজার টাকা অনুদান তুলে দিলেন চেয়ারম্যান আশফাক

sylpro24
sylpro24

সিলেট সদর উপজেলার ১ নং জালালাবাদ ইউনিয়নের রায়ের গাঁও গ্রামে বজ্রপাতে নিহত শিশু এনামের পিতার হাতে জেলা প্রশাসনের তহবিল থেকে প্রদান কৃত ২০ হাজার টাকা অনুদান তুলে দিলেন উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আশফাক আহমদ।

গতকাল ২০ এপ্রিল সিলেট জেলা প্রশাসনের সম্মেলন কক্ষে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা কমিটির সভা শেষে দুর্যোগ ব্যবস্থাপনা ও ত্রান মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়ার নির্দেশে জেলা প্রশাসনের তহবিল থেকে ২০ হাজার টাকার অনুদানের চেক মন্ত্রী মোফাজ্জল হোসেন চৌধুরী মায়া তুলে দেন সদর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা কাইজার মোহাম্মদ ফারাবীর হাতে।

উক্ত চেকের টাকা উপজেলা চেয়ারম্যান আলহাজ্ব আশফাক আহমদ ও নির্বাহী কর্মকর্তা কাইজার মোহাম্মদ ফারাবী রায়ের গাঁও গ্রামে গিয়ে নিহতের পরিবারকে প্রদান করেন। এসময় উপস্থিত ছিলেন জালালাবাদ ইউনিয়ন চেয়ারম্যান মোঃ মনফর আলী, উপজেলা আওয়ামীলীগ নেতা ফারুক খান, ইউনিয়ন আওয়ামীলীগের সাধারন সম্পাদক মোঃ আশ্রব আলী, মোহিত আলম শফিক মেম্বার, মানিক মিয়া মেম্বার, মন্তকা আহমদ মেম্বার, এমদাদ আলী, নূর মিয়া, মকবুল হোসেন, সিরাজ মিয়া, বাতির আহমদ দিলা, জালাল আহমদ, আব্রু মিয়া কনাই, ইসমাইল আলী, মুক্তিযোদ্ধা মখলিস মিয়া, ছোয়াদ আলী, সন্তুষ দে, রতিন্দ্র, প্রমূখ।

উপজেলা চেয়ারম্যান ও নির্বাহী অফিসার নিহতের পরিবার ও আত্মিয় স্বজনকে শান্তনা দেন।

উল্ল্যেখ ১৯ এপ্রিল বুধবার দুপুর ১ টায় গ্রামের পাশ্ববর্তী বিলে ধান কাটার সময় তার উপর বজ্রপাত পড়লে ঘটনাস্থলেই সে মারা যায় । নিহত এনাম উপজেলার ১ নং জালালাবাদ ইউনিয়নের রায়ের গাঁও গ্রামের হোছন আহমদের পুত্র। স্থানীয় সূত্র জানায়, ভারী বর্ষন ও পাহাড়ী ঢলে গ্রামের পাশ্ববর্তী বিলে পানির নিচে তলিয়ে যাওয়া বোরো ধানের ফসলের উপর থেকে সম্প্রতি পানি নেমে যায়। সেখানে আজ বুধবার সকালে দাদা ও বাবার সাথে বিলে ধান কাটতে যায় এনাম। দুপুরে হঠাৎ বৃষ্টির সাথে বজ্রপ্রাত হয়। বজ্রপাতটি তার উপর আঘাত হানে। সে ঘটনাস্থলেই মারা যায়।

Facebook Comments

Leave a Reply