আজঃ ১লা অগ্রহায়ণ ১৪২৫ - ১৫ই নভেম্বর ২০১৮ - রাত ৪:৫২

প্রতিবন্ধী মানুষের কল্যাণে কাজ করাই পৃথিবীর সবচেয়ে উত্তম কাজ

Published: আগ ১৮, ২০১৮ - ১২:০১ অপরাহ্ণ

সিলেট প্রতিদিন ডেস্ক :: সিলেটের অতিরিক্ত উপ পুলিশ কমিশনার (প্রটেকশন ও প্রটোকল) রওশনুজ্জামন সিদ্দিকী বলেছেন, প্রতিবন্ধীদের সমাজের উন্নয়নের অংশ হিসেবে তাদেরকে সাহায্য সহযোগিতার মাধ্যমে এগিয়ে নিতে হবে।

তারা সমাজের অবহেলিত নয়। বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার প্রতিবন্ধী মানুষের কল্যাণে সর্বদা আন্তরিক এবং তাদের উন্নয়নে বদ্ধপরিকর। প্রতিবন্ধীদের স্বাবলম্বী ও প্রতিষ্ঠিত করতে সরকার বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে।

সেই সব সুযোগ কাজে লাগিয়ে সরকারের পাশাপাশি প্রতিবন্ধীদের মানব সম্পদে পরিণত করতে সমাজের বিত্তবানদের এগিয়ে আসতে হবে। তিনি আরও বলেন, প্রতিবন্ধীদের কল্যাণ কাজ করাই সবচেয়ে উত্তম কাজ।

তিনি ১৭ আগস্ট শুক্রবার সিলেট নগরীর গোয়াবাড়ী মাদ্রাসা মাঠে ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের উদ্যোগে ও রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের সার্বিক সহযোগীতায় প্রতিবন্ধী, এতিম ও দুস্থ-শিক্ষার্থীদের মধ্যে ছাতা বিতরণ এবং ১৫ই আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৩তম শাহাদৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।

রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের উপদেষ্টা আলহাজ্ব আতাউর রহমান খান শামছু’র সভাপতিত্বে ও ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের সহ-সভাপতি ও রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের অফিস সম্পাদক আল আমিন আহমেদ নাঈমের পরিচালনা অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখেন সুনামগঞ্জ জেলা পরিষদের সদস্য মোঃ জহিরুল ইসলাম।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সিলেট সিটি কর্পোরেশন ৮নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলার ইলিয়াছুর রাহমান ইলিয়াছ, বিশিষ্ট সমাজসেবক রোটারিয়ান ইকবাল আহমদ, রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের প্রধান উপদেষ্টা বিশিষ্ট সমাজসেবক ফজলুর রহমান, প্রতিবন্ধী নাগরিক পরিষদ সিলেটর সাধারণ সম্পাদক মাছুম আহমত চৌধুরী, সমকালের জগন্নাথপুর উপজেলা প্রতিনিধি তাজ উদ্দিন আহমদ প্রমুখ।

শুরুতে পবিত্র কুরআন থেকে তেলাওয়াত করেন প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী হাফিজ কয়েছ মিয়া। অনুষ্ঠানে স্বগত বক্তব্য রাখেন ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের সাধারণ সম্পাদক ছাইদুর রহমান রকি।

বক্তব্য রাখেন ও উপস্থিত ছিলেন রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের সহ-সভাপতি ওয়ালি উল্লাহ আল মাহমুদী, প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক রজন, ফেরদৌস আহমদ রাজু, ন্যায্যমূল্য ইসলাম, ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের সিনিয়র সহ সভাপতি ফাতেমা আক্তার, প্রচার সম্পাদক আলী হোসাইন, নির্বাহী সদস্য খাদিজা আক্তার খাদিজা, ছনিয়া আক্তার, রফিকুল ইসলাম রাজু, আতিকুর রহমান জাকির, আব্দুল মোমেন জুবের। এছাড়াও সিলেটের বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, প্রতিবন্ধীদের ছাতা ক্রয় করার ক্ষমতা না থাকায় বৃষ্টি ভিজছে। এতে তারা রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। এমনি সময় ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের উদ্যোগে ও রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের সার্বিক সহযোগীতায় প্রতিবন্ধীদের মধ্যে ছাতা বিতরণ করা নিঃসন্দেহ প্রশংসার দাবী রাখে।

প্রায় অর্ধশতাধিক প্রতিবন্ধী, এতিম ও দুস্থ শিক্ষার্থীদের মধ্যে ছাতা বিতরণ করা হয়। শেষ ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু সহ শাহাদৎ বরণকারীদের রূহের মাগফেরাত কামনা করে দোয়া পরিচালনা করেন মাওলানা কারী ইসহাক।

Facebook Comments

সিলেট প্রতিদিন ডেস্ক :: সিলেটের অতিরিক্ত উপ পুলিশ কমিশনার (প্রটেকশন ও প্রটোকল) রওশনুজ্জামন সিদ্দিকী বলেছেন, প্রতিবন্ধীদের সমাজের উন্নয়নের অংশ হিসেবে তাদেরকে সাহায্য সহযোগিতার মাধ্যমে এগিয়ে নিতে হবে।

তারা সমাজের অবহেলিত নয়। বর্তমান প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সরকার প্রতিবন্ধী মানুষের কল্যাণে সর্বদা আন্তরিক এবং তাদের উন্নয়নে বদ্ধপরিকর। প্রতিবন্ধীদের স্বাবলম্বী ও প্রতিষ্ঠিত করতে সরকার বিভিন্ন পদক্ষেপ গ্রহণ করেছে।

সেই সব সুযোগ কাজে লাগিয়ে সরকারের পাশাপাশি প্রতিবন্ধীদের মানব সম্পদে পরিণত করতে সমাজের বিত্তবানদের এগিয়ে আসতে হবে। তিনি আরও বলেন, প্রতিবন্ধীদের কল্যাণ কাজ করাই সবচেয়ে উত্তম কাজ।

তিনি ১৭ আগস্ট শুক্রবার সিলেট নগরীর গোয়াবাড়ী মাদ্রাসা মাঠে ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের উদ্যোগে ও রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের সার্বিক সহযোগীতায় প্রতিবন্ধী, এতিম ও দুস্থ-শিক্ষার্থীদের মধ্যে ছাতা বিতরণ এবং ১৫ই আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমানের ৪৩তম শাহাদৎ বার্ষিকী ও জাতীয় শোক দিবস উপলক্ষে আয়োজিত আলোচনা সভা ও দোয়া মাহফিল প্রধান অতিথির বক্তব্যে উপরোক্ত কথাগুলো বলেন।

রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি ও ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের উপদেষ্টা আলহাজ্ব আতাউর রহমান খান শামছু’র সভাপতিত্বে ও ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের সহ-সভাপতি ও রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের অফিস সম্পাদক আল আমিন আহমেদ নাঈমের পরিচালনা অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তার বক্তব্য রাখেন সুনামগঞ্জ জেলা পরিষদের সদস্য মোঃ জহিরুল ইসলাম।

বিশেষ অতিথির বক্তব্য রাখেন সিলেট সিটি কর্পোরেশন ৮নং ওয়ার্ডের কাউন্সিলার ইলিয়াছুর রাহমান ইলিয়াছ, বিশিষ্ট সমাজসেবক রোটারিয়ান ইকবাল আহমদ, রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের প্রধান উপদেষ্টা বিশিষ্ট সমাজসেবক ফজলুর রহমান, প্রতিবন্ধী নাগরিক পরিষদ সিলেটর সাধারণ সম্পাদক মাছুম আহমত চৌধুরী, সমকালের জগন্নাথপুর উপজেলা প্রতিনিধি তাজ উদ্দিন আহমদ প্রমুখ।

শুরুতে পবিত্র কুরআন থেকে তেলাওয়াত করেন প্রতিবন্ধী শিক্ষার্থী হাফিজ কয়েছ মিয়া। অনুষ্ঠানে স্বগত বক্তব্য রাখেন ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের সাধারণ সম্পাদক ছাইদুর রহমান রকি।

বক্তব্য রাখেন ও উপস্থিত ছিলেন রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের সহ-সভাপতি ওয়ালি উল্লাহ আল মাহমুদী, প্রতিষ্ঠাতা সাধারণ সম্পাদক আব্দুর রাজ্জাক রজন, ফেরদৌস আহমদ রাজু, ন্যায্যমূল্য ইসলাম, ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের সিনিয়র সহ সভাপতি ফাতেমা আক্তার, প্রচার সম্পাদক আলী হোসাইন, নির্বাহী সদস্য খাদিজা আক্তার খাদিজা, ছনিয়া আক্তার, রফিকুল ইসলাম রাজু, আতিকুর রহমান জাকির, আব্দুল মোমেন জুবের। এছাড়াও সিলেটের বিভিন্ন সামাজিক সংগঠনের নেতৃবৃন্দ উপস্থিত ছিলেন।

অনুষ্ঠানে বক্তারা বলেন, প্রতিবন্ধীদের ছাতা ক্রয় করার ক্ষমতা না থাকায় বৃষ্টি ভিজছে। এতে তারা রোগে আক্রান্ত হচ্ছে। এমনি সময় ওয়াকার ফাউন্ডেশন বাংলাদেশের উদ্যোগে ও রহমানীয়া প্রতিবন্ধী কল্যাণ ফাউন্ডেশনের সার্বিক সহযোগীতায় প্রতিবন্ধীদের মধ্যে ছাতা বিতরণ করা নিঃসন্দেহ প্রশংসার দাবী রাখে।

প্রায় অর্ধশতাধিক প্রতিবন্ধী, এতিম ও দুস্থ শিক্ষার্থীদের মধ্যে ছাতা বিতরণ করা হয়। শেষ ১৯৭৫ সালের ১৫ আগস্ট জাতির জনক বঙ্গবন্ধু সহ শাহাদৎ বরণকারীদের রূহের মাগফেরাত কামনা করে দোয়া পরিচালনা করেন মাওলানা কারী ইসহাক।

Facebook Comments

এ জাতীয় আরো খবর