আজঃ ১১ই আশ্বিন ১৪২৫ - ২৬শে সেপ্টেম্বর ২০১৮ - দুপুর ১:৫১

নেপালকে হারালো পাকিস্তান, জয় বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইটের

Published: সেপ্টে ০৪, ২০১৮ - ৬:২৬ অপরাহ্ণ

ক্রীড়া ডেস্ক :: সাফ ফুটবলের উদ্বোধনী ম্যাচ খেলেছে নেপাল-পাকিস্তান। দেশের ফুটবলেই দর্শক খরা। সেখানে পাকিস্তান-নেপালের ম্যাচ দেখতে কে আর মাঠে যাবে। তবে টিভির পর্দায় চোখ থাকার কথা দর্শকদের। যতটা না ম্যাচের হার-জিত দেখতে তার চেয়ে বেশি কেমন সম্প্রচার করে তা দেখার জন্য। কারণ বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ এর মাধ্যমে প্রথমবারের মতো সাফ ফুটবলের ম্যাচটি সরাসরি সম্প্রচার হচ্ছে। তাতে নেপালকে ২-১ গোলে হারিয়েছে পাকিস্তান। তবে জয় হয়েছে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ এর।

মঙ্গলবার বিকেল ৪টায় বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়াম থেকে সরাসরি দারুণ ম্যাচ সম্প্রচার করে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট জিতেছে দর্শকদের আস্থা। সাফ ফুটবলের প্রথম ম্যাচে মাঠে নামার আগেই একপ্রকার আত্মসমর্পণ করে নিয়েছিল পাকিস্তান। দেশটির ব্রাজিলিয়ান কোচ হোসে অ্যান্তোনিও নগুয়েরা টেনেটুনে সেমিফাইনালের লক্ষ্যের কথা জানান। কিন্তু তার দলই জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে। হেরেছে ম্যাচের পরিষ্কার ফেবারিট নেপাল।

টানা তিন বছর পর আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলতে নামা পাকিস্তান ম্যাচের প্রথমার্ধে এগিয়ে যায়। নতুন এক দল নিয়ে ম্যাচের ৩৬ মিনিটে এগিয়ে যায় নগুয়েরোর দল। পেনাল্টি থেকে দেওয়া ওই গোলে জয় দেখছিল তারা। কিন্তু ম্যাচের ৮২ মিনিটে দারুণ এক গোল করে সমতায় ফেরান নেপালের বিমল ঘাটি। এরপর ম্যাচের ৮৯ মিনিটে দারুণ এক শট নিয়ে জয় প্রায় ছিনিয়ে নিচ্ছিল তারা। কিন্তু জয় লেখা ছিল পাকিস্তানের ভাগ্যে। তাই যোগ করা সময়ে (৯৬ মিনিটে) মোহাম্মদ আলী গোল করে দলকে ২-১ গোলের জয় এনে দেন।

সাফ সুজুকি-২০১৮ কাপে নেপাল ও পাকিস্তানের সঙ্গে ‘এ’ গ্রুপে আছে বাংলাদেশ ও ভুটান। সেমিফাইনালে ওঠার পথে প্রতিটি দলকে খেলতে হবে তিনটি করে ম্যাচ। অভ্যন্তরীণ সমস্যায় জর্জরিত হয়ে তিন বছর ধরেই আন্তর্জাতিক অঙ্গনে অনুপস্থিত পাকিস্তান। ২০১৫ সালের সর্বশেষ সাফে খেলেওনি। ফুটবল ফেডারেশনে সরকারি হস্তক্ষেপের কারণে ২০১৭-এর অক্টোবর থেকে পরবর্তী ছয় মাস ফিফার সদস্যপদও স্থগিত ছিল পাকিস্তানের।

এ বছরের এপ্রিলে নতুন কোচ নিয়োগ দিয়ে নতুন শুরু করে পাকিস্তান। গত মাসে অনূর্ধ্ব-২৩ এশিয়ান গেমসে অংশ নেয় তারা। সেই দলের ১০ জন নিয়ে নবযাত্রার শুরু এই সাফে। তার আগে কোনো প্রস্তুতি ম্যাচও খেলেনি দলটি। সাফে প্রথম লক্ষ্য তাই গ্রুপ পর্ব উতরানো বলে জানান পাকিস্তান কোচ। তাতে প্রথম ম্যাচে নেপালের বিপক্ষে জিতে প্রতিযোগিতায় দারুণভাবে শুরু করলো পাকিস্তান। কঠিন গ্রুপ ‘এ’ কে করে তুললো আরও কঠিন।

Facebook Comments

ক্রীড়া ডেস্ক :: সাফ ফুটবলের উদ্বোধনী ম্যাচ খেলেছে নেপাল-পাকিস্তান। দেশের ফুটবলেই দর্শক খরা। সেখানে পাকিস্তান-নেপালের ম্যাচ দেখতে কে আর মাঠে যাবে। তবে টিভির পর্দায় চোখ থাকার কথা দর্শকদের। যতটা না ম্যাচের হার-জিত দেখতে তার চেয়ে বেশি কেমন সম্প্রচার করে তা দেখার জন্য। কারণ বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ এর মাধ্যমে প্রথমবারের মতো সাফ ফুটবলের ম্যাচটি সরাসরি সম্প্রচার হচ্ছে। তাতে নেপালকে ২-১ গোলে হারিয়েছে পাকিস্তান। তবে জয় হয়েছে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট-১ এর।

মঙ্গলবার বিকেল ৪টায় বঙ্গবন্ধু জাতীয় স্টেডিয়াম থেকে সরাসরি দারুণ ম্যাচ সম্প্রচার করে বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট জিতেছে দর্শকদের আস্থা। সাফ ফুটবলের প্রথম ম্যাচে মাঠে নামার আগেই একপ্রকার আত্মসমর্পণ করে নিয়েছিল পাকিস্তান। দেশটির ব্রাজিলিয়ান কোচ হোসে অ্যান্তোনিও নগুয়েরা টেনেটুনে সেমিফাইনালের লক্ষ্যের কথা জানান। কিন্তু তার দলই জয় নিয়ে মাঠ ছেড়েছে। হেরেছে ম্যাচের পরিষ্কার ফেবারিট নেপাল।

টানা তিন বছর পর আন্তর্জাতিক ম্যাচ খেলতে নামা পাকিস্তান ম্যাচের প্রথমার্ধে এগিয়ে যায়। নতুন এক দল নিয়ে ম্যাচের ৩৬ মিনিটে এগিয়ে যায় নগুয়েরোর দল। পেনাল্টি থেকে দেওয়া ওই গোলে জয় দেখছিল তারা। কিন্তু ম্যাচের ৮২ মিনিটে দারুণ এক গোল করে সমতায় ফেরান নেপালের বিমল ঘাটি। এরপর ম্যাচের ৮৯ মিনিটে দারুণ এক শট নিয়ে জয় প্রায় ছিনিয়ে নিচ্ছিল তারা। কিন্তু জয় লেখা ছিল পাকিস্তানের ভাগ্যে। তাই যোগ করা সময়ে (৯৬ মিনিটে) মোহাম্মদ আলী গোল করে দলকে ২-১ গোলের জয় এনে দেন।

সাফ সুজুকি-২০১৮ কাপে নেপাল ও পাকিস্তানের সঙ্গে ‘এ’ গ্রুপে আছে বাংলাদেশ ও ভুটান। সেমিফাইনালে ওঠার পথে প্রতিটি দলকে খেলতে হবে তিনটি করে ম্যাচ। অভ্যন্তরীণ সমস্যায় জর্জরিত হয়ে তিন বছর ধরেই আন্তর্জাতিক অঙ্গনে অনুপস্থিত পাকিস্তান। ২০১৫ সালের সর্বশেষ সাফে খেলেওনি। ফুটবল ফেডারেশনে সরকারি হস্তক্ষেপের কারণে ২০১৭-এর অক্টোবর থেকে পরবর্তী ছয় মাস ফিফার সদস্যপদও স্থগিত ছিল পাকিস্তানের।

এ বছরের এপ্রিলে নতুন কোচ নিয়োগ দিয়ে নতুন শুরু করে পাকিস্তান। গত মাসে অনূর্ধ্ব-২৩ এশিয়ান গেমসে অংশ নেয় তারা। সেই দলের ১০ জন নিয়ে নবযাত্রার শুরু এই সাফে। তার আগে কোনো প্রস্তুতি ম্যাচও খেলেনি দলটি। সাফে প্রথম লক্ষ্য তাই গ্রুপ পর্ব উতরানো বলে জানান পাকিস্তান কোচ। তাতে প্রথম ম্যাচে নেপালের বিপক্ষে জিতে প্রতিযোগিতায় দারুণভাবে শুরু করলো পাকিস্তান। কঠিন গ্রুপ ‘এ’ কে করে তুললো আরও কঠিন।

Facebook Comments

এ জাতীয় আরো খবর