আজঃ ৩রা পৌষ ১৪২৫ - ১৭ই ডিসেম্বর ২০১৮ - দুপুর ১২:৩২

জৈন্তাপুরে মাদ্রাসা ছাত্র মোজাম্মিল হত্যার প্রতিবাদে হরিপুরে সমাবেশ

Published: মার্চ ০৩, ২০১৮ - ১০:১৬ অপরাহ্ণ

প্রতিদিন ডেস্ক::সিলেটের জৈন্তাপুর উপজেলার হরিপুর বাজার দারুল হাদিস মাদ্রাসার ছাত্র মোজাম্মিল আলী হত্যা ও কওমী আলেম উলামাদের উপর আটরশী বেদাআতী কর্তৃক হামলা এবং সন্ত্রাসীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবীতে ৩ মার্চ শনিবার বিকালে উপজেলার হরিপুর বাজারে ঈমান আক্বিদা সংরক্ষণ কমিটির উদ্যোগে এক বিশাল সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

হরিপুর বাজার মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা হিলাল আহমদের সভাপতিত্বে ও মাওলানা আব্দুল ওয়াদুদের পরিচালনায় প্রতিবাদ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন ঈমান আক্বিদা সংরক্ষণ কমিটির আহ্বায়ক ও পূর্ব সিলেট আজাদ দ্বীনি বোর্ডের চেয়ারম্যান আল্লামা আলিমুদ্দীন দুর্লভপুরী।

বক্তব্য রাখেন রেঙ্গা মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা মুহিউল ইসলাম বুরহান, দরগাহ মাদ্রাসার শায়খুল হাদীস মাওলানা মুহ্বিবুল হক গাছবাড়ী, গলমুকাপন মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা শায়খ আব্দুশ শহীদ গলমুকাপনী, কাজির বাজার মাদ্রাসার শায়খুল হাদীস মাওলানা আহমদ আলী, হরিপুর বাজার মাদ্রাসার নায়েবে শায়খুল হাদীস মাওলানা আব্দুল কাদির বাগেরখালী, শিক্ষা সচিব মাওলানা নজরুল ইসলাম তোয়াকুলী, মাওলানা নুরুল হক দরবস্তী, মাওলানা আব্দুল জব্বার, মাওলানা জিল্লুর রহমান, মাওলানা আব্দুল হালিম, ডা. মোয়াজ্জেম হোসেন খান, মাওলানা আব্দুল মালিক, বিশিষ্ট আইনজীবী এডভোকেট মোহাম্মদ আলী, জৈন্তাপুর উপজেলা চেয়ারম্যান জয়নাল আবেদীন, জেলা পরিষদ সদস্য মুহিবুল হক, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান বশির উদ্দিন এম.এ, ৫নং ফতেহপুর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রশিদ, সাবেক চেয়ারম্যান মৌলভী রহমত উল্লাহ, দরবস্ত ইউপি চেয়ারম্যান বাহারুল আলম বাহার, চতুল ইউপি চেয়ারম্যান মাওলানা আবুল হোসেন চতুলী, চারিকাটা ইউপি চেয়ারম্যান শাহ আলম চৌধুরী তোফায়েল, সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল মতিন, মাওলানা জয়নাল আবেদী চান্দঘাটি, আলা উদ্দিন, জাকারিয়া মাহমুদ, ফারুক আহমদ, মাওলানা আব্দুস সালাম, নিহত ছাত্রের পিতা ফরিদ উদ্দিন, মাওলানা খালেদ আহমদ, মাসুম আল মাহদী, সাহাল আহমদ প্রমুখ।

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তারা বলেন, সিলেট শাহজালাল (রহ.) এর পূণ্যভূমির মাটিতে ৩৬০ আউলিয়া সহ অসংখ্য আল্লাহর ওলিরা শুয়ে আছেন। সিলেটের হক্বানী আলেমরা সারা পৃথিবীতে সুনাম কুড়িয়েছেন। এখনও এ দ্বারা অব্যহত আছে। সেই শাহজালালের মাটিতে দাঁড়িয়ে কেউ হক্বানী আলেম-উলামাদের রক্ত ঝরাবে তা মেনে নেওয়া যাবে না। বক্তারা বলেন, আমরা ইচ্ছা করলে ভন্ড ও আটরশীদের আস্তানা ধুলোয় মিশিয়ে দিতে পারি, কিন্তু আমরা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। আমরা আইন নিজের হাতে তুলে নিতে চাই না। আমরা চাই প্রশাসন যথাযথ পদক্ষেপ নিবে। আমাদেরকে দুর্বল মনে করলে ভুল হবে। বক্তারা অবিলম্বে খুনী ও সন্ত্রাসীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী জানান। অন্যথায় যেকোন কঠিন পরিস্থিতির দায়ভার প্রশাসনকেই বহন করতে হবে।

সমাবেশে উপজেলার বিভিন্ন অঞ্চল থেকে মিছিলসহকারে তৌহিদি জনতা প্রতিবাদ সমাবেশে যোগ দেন। সমাবেশ থেকে কর্মসূচী ঘোষণা করা হয়। কর্মসূচীর মধ্যে রয়েছে প্রতিটি উপজেলায় সমাবেশ, আগামী ১ এপ্রিলের প্রতি উপজেলা সদরে প্রতিবাদ সমাবেশ, আগামী ১১ মার্চ জৈন্তাপুর উপজেলা সদরে মানববন্ধন ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান, আগামী ৫ এপ্রিল সিলেটে বিশাল প্রতিবাদ সমাবেশ। সিলেটের শীর্ষ আলেমদের ও ১৭ পরগণার বৈঠক থেকে সর্বসম্মতিক্রমে মাওলানা আলিমুদ্দীন দুর্লভপুরীকে আহ্বায়ক ও হরিপুর বাজার মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা হিলাল আহমদকে সদস্য সচিব করে ১০১ জন সদস্য বিশিষ্ট ঈমান আক্বিদা সংরক্ষণ কমিটি গঠন করা হয়।

Facebook Comments

প্রতিদিন ডেস্ক::সিলেটের জৈন্তাপুর উপজেলার হরিপুর বাজার দারুল হাদিস মাদ্রাসার ছাত্র মোজাম্মিল আলী হত্যা ও কওমী আলেম উলামাদের উপর আটরশী বেদাআতী কর্তৃক হামলা এবং সন্ত্রাসীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তির দাবীতে ৩ মার্চ শনিবার বিকালে উপজেলার হরিপুর বাজারে ঈমান আক্বিদা সংরক্ষণ কমিটির উদ্যোগে এক বিশাল সমাবেশ অনুষ্ঠিত হয়।

হরিপুর বাজার মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা হিলাল আহমদের সভাপতিত্বে ও মাওলানা আব্দুল ওয়াদুদের পরিচালনায় প্রতিবাদ সমাবেশে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন ঈমান আক্বিদা সংরক্ষণ কমিটির আহ্বায়ক ও পূর্ব সিলেট আজাদ দ্বীনি বোর্ডের চেয়ারম্যান আল্লামা আলিমুদ্দীন দুর্লভপুরী।

বক্তব্য রাখেন রেঙ্গা মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা মুহিউল ইসলাম বুরহান, দরগাহ মাদ্রাসার শায়খুল হাদীস মাওলানা মুহ্বিবুল হক গাছবাড়ী, গলমুকাপন মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা শায়খ আব্দুশ শহীদ গলমুকাপনী, কাজির বাজার মাদ্রাসার শায়খুল হাদীস মাওলানা আহমদ আলী, হরিপুর বাজার মাদ্রাসার নায়েবে শায়খুল হাদীস মাওলানা আব্দুল কাদির বাগেরখালী, শিক্ষা সচিব মাওলানা নজরুল ইসলাম তোয়াকুলী, মাওলানা নুরুল হক দরবস্তী, মাওলানা আব্দুল জব্বার, মাওলানা জিল্লুর রহমান, মাওলানা আব্দুল হালিম, ডা. মোয়াজ্জেম হোসেন খান, মাওলানা আব্দুল মালিক, বিশিষ্ট আইনজীবী এডভোকেট মোহাম্মদ আলী, জৈন্তাপুর উপজেলা চেয়ারম্যান জয়নাল আবেদীন, জেলা পরিষদ সদস্য মুহিবুল হক, উপজেলা ভাইস চেয়ারম্যান বশির উদ্দিন এম.এ, ৫নং ফতেহপুর ইউপি চেয়ারম্যান আব্দুর রশিদ, সাবেক চেয়ারম্যান মৌলভী রহমত উল্লাহ, দরবস্ত ইউপি চেয়ারম্যান বাহারুল আলম বাহার, চতুল ইউপি চেয়ারম্যান মাওলানা আবুল হোসেন চতুলী, চারিকাটা ইউপি চেয়ারম্যান শাহ আলম চৌধুরী তোফায়েল, সাবেক চেয়ারম্যান আব্দুল মতিন, মাওলানা জয়নাল আবেদী চান্দঘাটি, আলা উদ্দিন, জাকারিয়া মাহমুদ, ফারুক আহমদ, মাওলানা আব্দুস সালাম, নিহত ছাত্রের পিতা ফরিদ উদ্দিন, মাওলানা খালেদ আহমদ, মাসুম আল মাহদী, সাহাল আহমদ প্রমুখ।

প্রতিবাদ সমাবেশে বক্তারা বলেন, সিলেট শাহজালাল (রহ.) এর পূণ্যভূমির মাটিতে ৩৬০ আউলিয়া সহ অসংখ্য আল্লাহর ওলিরা শুয়ে আছেন। সিলেটের হক্বানী আলেমরা সারা পৃথিবীতে সুনাম কুড়িয়েছেন। এখনও এ দ্বারা অব্যহত আছে। সেই শাহজালালের মাটিতে দাঁড়িয়ে কেউ হক্বানী আলেম-উলামাদের রক্ত ঝরাবে তা মেনে নেওয়া যাবে না। বক্তারা বলেন, আমরা ইচ্ছা করলে ভন্ড ও আটরশীদের আস্তানা ধুলোয় মিশিয়ে দিতে পারি, কিন্তু আমরা আইনের প্রতি শ্রদ্ধাশীল। আমরা আইন নিজের হাতে তুলে নিতে চাই না। আমরা চাই প্রশাসন যথাযথ পদক্ষেপ নিবে। আমাদেরকে দুর্বল মনে করলে ভুল হবে। বক্তারা অবিলম্বে খুনী ও সন্ত্রাসীদের গ্রেফতার করে দৃষ্টান্তমূলক শাস্তি দাবী জানান। অন্যথায় যেকোন কঠিন পরিস্থিতির দায়ভার প্রশাসনকেই বহন করতে হবে।

সমাবেশে উপজেলার বিভিন্ন অঞ্চল থেকে মিছিলসহকারে তৌহিদি জনতা প্রতিবাদ সমাবেশে যোগ দেন। সমাবেশ থেকে কর্মসূচী ঘোষণা করা হয়। কর্মসূচীর মধ্যে রয়েছে প্রতিটি উপজেলায় সমাবেশ, আগামী ১ এপ্রিলের প্রতি উপজেলা সদরে প্রতিবাদ সমাবেশ, আগামী ১১ মার্চ জৈন্তাপুর উপজেলা সদরে মানববন্ধন ও উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বরাবরে স্মারকলিপি প্রদান, আগামী ৫ এপ্রিল সিলেটে বিশাল প্রতিবাদ সমাবেশ। সিলেটের শীর্ষ আলেমদের ও ১৭ পরগণার বৈঠক থেকে সর্বসম্মতিক্রমে মাওলানা আলিমুদ্দীন দুর্লভপুরীকে আহ্বায়ক ও হরিপুর বাজার মাদ্রাসার মুহতামিম মাওলানা হিলাল আহমদকে সদস্য সচিব করে ১০১ জন সদস্য বিশিষ্ট ঈমান আক্বিদা সংরক্ষণ কমিটি গঠন করা হয়।

Facebook Comments

এ জাতীয় আরো খবর