আজঃ ৩রা পৌষ ১৪২৫ - ১৭ই ডিসেম্বর ২০১৮ - সকাল ৭:৪৪

জগন্নাথপুরে পুলিশের হাত থেকে হত্যা মামলার আসামী পালিয়েগেল

Published: জানু ২৯, ২০১৬ - ১২:২২ পূর্বাহ্ণ

জগন্নাথপুর প্রতিনিধিঃ জগন্নাথপুরে পুলিশের হাত থেকে এক হত্যা মামলার আসামীকে ছিনতাইয়ের ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। এ ঘটনায় শতাধিক ব্যক্তিকে আসামী করে পুলিশ অ্যাসল্ট মামলা হয়েছে।

জানাগেছে, জগন্নাথপুর উপজেলার কলকলিয়া ইউনিয়নের কান্দারগাঁও-নোয়াগাঁও গ্রামের মৃত আব্দুল আহাদের ছেলে আকিকুর রহমান ওরফে আকুল আদালতের গ্রেফতারী পরোয়ানাভূক্ত একটি হত্যা মামলার পলাতক আসামী। গত বুধবার রাত প্রায় ২ টার দিকে জগন্নাথপুর থানার এসআই আব্দুল কাদেরের নেতৃত্বে একদল পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আসামীর বাড়িতে অভিযান চালিয়ে হত্যা মামলার পলাতক আসামী আকিকুর রহমান ওরফে আকুলকে গ্রেফতার করেন।

এ সময় আসামীর আত্মীয়-স্বজনরা গ্রামের মসজিদের মাইকে ঘোষণা দেয়, তাদের বাড়িতে ডাকাতদল হানা দিয়েছে। এ খবর শুনে গ্রামের লোকজন ছুটে আসেন। এক পর্যায়ে পুলিশকে ডাকাত বলে আক্রমন করে গ্রামের সমবেত লোকজন পুলিশের কাছ থেকে হ্যানকাফ পরিহিত গ্রেফতারকৃত আসামী আকিকুর রহমান আকুলকে ছিনিয়ে নিয়ে যায়। এ সময় পুলিশ ৩০ রাউন্ড ফাঁকাগুলি ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। অবশেষে পুলিশের চাপে বাধ্য হয়ে গ্রামের লোকজন কিছুক্ষণ পরে ছিনিয়ে নেয়া আসামীকে আবার পুলিশের কাছে সোপর্দ করেন।

এ ঘটনায় জগন্নাথপুর থানার এসআই আব্দুল কাদের বাদি হয়ে বৃহস্পতিবার এজাহারভূক্ত ১০ ও অজ্ঞাতনামা আরো ১০০ জনকে আসামী করে জগন্নাথপুর থানায় পুলিশ অ্যাসল্ট মামলা রুজু করেছেন

জগন্নাথপুর থানার এসআই আব্দুল কাদের ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

Facebook Comments

জগন্নাথপুর প্রতিনিধিঃ জগন্নাথপুরে পুলিশের হাত থেকে এক হত্যা মামলার আসামীকে ছিনতাইয়ের ঘটনায় এলাকায় চাঞ্চল্যের সৃষ্টি হয়েছে। এ ঘটনায় শতাধিক ব্যক্তিকে আসামী করে পুলিশ অ্যাসল্ট মামলা হয়েছে।

জানাগেছে, জগন্নাথপুর উপজেলার কলকলিয়া ইউনিয়নের কান্দারগাঁও-নোয়াগাঁও গ্রামের মৃত আব্দুল আহাদের ছেলে আকিকুর রহমান ওরফে আকুল আদালতের গ্রেফতারী পরোয়ানাভূক্ত একটি হত্যা মামলার পলাতক আসামী। গত বুধবার রাত প্রায় ২ টার দিকে জগন্নাথপুর থানার এসআই আব্দুল কাদেরের নেতৃত্বে একদল পুলিশ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আসামীর বাড়িতে অভিযান চালিয়ে হত্যা মামলার পলাতক আসামী আকিকুর রহমান ওরফে আকুলকে গ্রেফতার করেন।

এ সময় আসামীর আত্মীয়-স্বজনরা গ্রামের মসজিদের মাইকে ঘোষণা দেয়, তাদের বাড়িতে ডাকাতদল হানা দিয়েছে। এ খবর শুনে গ্রামের লোকজন ছুটে আসেন। এক পর্যায়ে পুলিশকে ডাকাত বলে আক্রমন করে গ্রামের সমবেত লোকজন পুলিশের কাছ থেকে হ্যানকাফ পরিহিত গ্রেফতারকৃত আসামী আকিকুর রহমান আকুলকে ছিনিয়ে নিয়ে যায়। এ সময় পুলিশ ৩০ রাউন্ড ফাঁকাগুলি ছুড়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রনে আনে। অবশেষে পুলিশের চাপে বাধ্য হয়ে গ্রামের লোকজন কিছুক্ষণ পরে ছিনিয়ে নেয়া আসামীকে আবার পুলিশের কাছে সোপর্দ করেন।

এ ঘটনায় জগন্নাথপুর থানার এসআই আব্দুল কাদের বাদি হয়ে বৃহস্পতিবার এজাহারভূক্ত ১০ ও অজ্ঞাতনামা আরো ১০০ জনকে আসামী করে জগন্নাথপুর থানায় পুলিশ অ্যাসল্ট মামলা রুজু করেছেন

জগন্নাথপুর থানার এসআই আব্দুল কাদের ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেছেন।

Facebook Comments

এ জাতীয় আরো খবর